সোমবার, ১৭ Jun ২০২৪, ০৪:৩৩ অপরাহ্ন

চিত্রভাষা : দৃশ্যধারক অমিত সরকারের লেন্সে

আলোকচিত্র বা ফটোগ্রাফি আসলে ধরে রাখে আমাদের মুহূর্তের আবেগ ও অভিজ্ঞতাকে। আমাদের চারপাশে যে সময় খণ্ডগুলি সারাক্ষণ ভেসে বেড়াচ্ছে সেগুলিকে মুছে যেতে না দিয়ে একমাত্র ফটোগ্রাফিই মুহূর্তকে করে তুলতে পারে অমর। একমাত্র ক্যামেরার শাটার স্পন্দেই বিস্তারিত ......

এলোমেলো স্বপ্ন-শোভা

প্রেমজলোচ্ছ্বাসে সিক্ত আঁখিপল্লব।হৃদয়ে খরতর রক্তস্রোত।তবুও অভিপ্রায় যদি ফিরে আসো অন্তনীড়ে-ভুলে আকাশ অভিমান।ক্ষমা করে দেবো ভুলগুলো শতশুধরে নিজেকে,ঢেলে দেবো পদতলে সমুদ্রসম প্রেমঅর্ঘ্য।জোনাকির আলোয় বসে শুনে নিও হৃদয় বাজনা।নিত্য ছোঁয়াবো খোঁপাতে তোমার কাক ডাকা ভোরেরখসে যাওয়া শিউলির বিস্তারিত ......

দুটি কবিতা-সুজিত পাত্র

১. খেলাপনোনাজল আর জীবন আজন্ম শত্রু লক্ষীমনি আদরেরসমস্ত হিসেব ফুটপাথে গড়ায়জীর্ন দেবতা রাস্তার উপর লাখো পদাঘাতে স্থবিরদিকশূন্য বৃষ্টি প্রার্থনার প্রেমিক আজ নিমজ্জিতবহু দূর থেকে ভেসে আসে জলতরঙ্গ, মৃদু আলাপকোলাহল শেষে প্রত্যয়ী সকাল ডাকলেও আলস্য পড়ে বিস্তারিত ......

আগুন কিন্তু ধর্ম মানে-সোফিয়ার রহমান

জ্বলছে জ্বলুক ওদেশ আমাদের কী যায়-আসে তাতেআমরা তো বেশ আছি নিদ্রাসুখ আর দুধেভাতে।দু’চারটে মানুষ মরে মরুক, এদেশেও হয় কত কিএপারেও নাহয় দু’দশটা লাশ হবে ক্ষতি কীসাহিত্য-সভায় কত যে লেখক, কতশত কবিসম্প্রদায়ের জামা খুলে এসো দেখি বিস্তারিত ......

যে পূর্ণত্ব চাই, আসে না-নূর মহম্মদ

হইনি , হয়ে উঠতে পারিনি আদর্শ মহাপ্রাণপূর্ণত্ব পেতে চাই যে বিপুল কর্মপ্রকরণ সীমাহীনছুঁতে পারিনি তার কিছুই কিয়দংশ ও ক্ষুদ্রতমকেবলই কেটেছে, কাটছে সময় অর্থহীন অকর্মেইজীবন তাই রয়ে গেল অপূর্ণ সত্তা হয়েই অনর্থকযে সত‍্যের সাধনা করলে যে বিস্তারিত ......

আমার নিভৃতের আকাশ-রবীন বসু

১. অনুভবদৃশ্যের গভীরে আছে গাঢ় অবলেপদৃশ্যের ভিতরে কোন অনুভবগাঢ় অবলেপ ঘিরে থাকেরহস্যমাখানো এই সোঁদা গন্ধগভীর গোপনকে ছুঁয়ে দ্যায়বিচিত্র বিভায় কাঁপে চরাচর তখন। ২. ভ্রমণভ্রমণের পদচিহ্ন দাগহীন বাঙ্ময়ধুলোমাখা সবুজ আর নৈঃশব্দ্যসহজেই পা মেলাতে পারে ইতস্ততনিবিড় টানের বিস্তারিত ......

আঙুল ছুঁয়ে গলে পড়ে জল-অরূপম মাইতি

এখন, আঙুল ছুঁয়ে টুপ করে গলে যায় জলআকাশে চাঁদের কণা, শশীমুখী,রোজনিয়ম করে ওঠে, আবার ডুবে যায়ঠিক যেমন তুমি আমাকে আরআমি তোমাকেদেখতে আসা-যাওয়া করতামপ্রথম যেদিন দেখা হয় নিশীথের দোকানেগনগনে স্টোভের সামনেউজ্জ্বল তোমার মুখ দেখেপূর্ণিমার চাঁদের কথা বিস্তারিত ......

দুটি কবিতা-সঞ্চারী গোস্বামী

১. দেউলযেখানে বটের ঝুরিহয়ে হয়ে বিষাদ নেমেছেযেখানে খেজুর পাতাছুঁয়ে যায় কবেকার হাওয়া,সেখানে রোদের কথা,মেঘের ও আকাশের কথাধ্রুবতারা লিখে রাখে।বর্ষার জমা জল, আগাছা পেরিয়েঅতীতের ভগ্নস্তূপেখেলা করে মেঘছেঁড়া আলো।আলো-অন্ধকার দিয়েপ্রসাধন সারা শেষেআকাশের নিচে থামে নিভৃত দেউল;বিগত দিনের বিস্তারিত ......

অন্ধকারের চোখ-মনোতোষ আচার্য

গল্পের ছলে সেই বলে যাওয়া অযুত বেদনা,কানে তার প্রতিধ্বনিফুরোনোর আগেনির্মাণ করেছি অস্তিবোধনগ্ন নির্জনে একা মিশে গেছিজল ও মাটির কাছাকাছি,ব্রহ্মাণ্ড মায়ায়…সমবেত শুভচেতনায় জ্বেলেছি সলতে দীপআন্তর উজ্জ্বল এক কবিতার বাড়িঅবিশ্বাস ঘেঁটে ঘেঁটে এগিয়ে চলেছিস্বতঃস্ফূর্ত আলোর বিস্তারিত ......

কবীরের দোঁহাবলি-ভাবানুবাদ: গৌতম ঘোষদস্তিদার Goutam Ghoshdastidar

১. কাল করে সো আজ কর, আজ করে সো অব।পল মেঁ প্রলয় হোয়েগি, বহুরি করেগা কব।।∆কাল করবে তো আজ করো, আজ করবে তো এখন।প্রলয় আসে তো পলকেই, কাজটি তাহলে কখন। ২. বুরা জো দেখন ম্যাঁয় বিস্তারিত ......



© All rights reserved © পাতা প্রকাশ
Developed by : IT incharge