শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ০৩:২১ পূর্বাহ্ন

পবিত্র মহন্ত জীবন এর একগুচ্ছ কবিতা

পবিত্র মহন্ত জীবন এর একগুচ্ছ কবিতা

পবিত্র মহন্ত জীবন এর একগুচ্ছ কবিতা

১. অনিয়মের বারান্দা
অনিয়মের বারান্দায় এসে
অমানুষদের কিল-ঘুষি আর
দাপটে আসা দুষ্কৃির সংকেত
আজো দেখতে হয় আমাকে।
অজ্ঞাত মানুষের সংঘর্ষ এড়াতে
কতবার লুকাতে পারি ?
আমার ভিতরের নাভি আমাকে
যন্ত্রণায় দুমড়েমুচড়ে খায়।

২. ঘুমন্ত মানুষের চিৎকার
ঘুমন্ত মানুষের চিৎকারে –
মৃত্যু আমাকে ডাকে।
হয়তো কোন আত্মার আত্মীয়
সময়ের ফাঁকে।।
কেন সময় হয়েছে যাবার
ডাকছে বারংবার।
আমি হয়তো সঙ্গী তোমার
সময় হয়েছে যাওয়ার।।
তুমি আমার আত্মার আত্মীয়
একটু অপেক্ষা করো।
আজ আমিও তোমার পথযাত্রী
করো ভবপার।।
এখনো অনিয়মের সুত্রপাত –
উশৃংখল-অনৈতিক অসভ্যতা,
অনিয়মের বারান্দায় অমানুষ
এখনো পাগলা ঘোড়া।।

৩. সতীত্ব সীতা তুমি পিতা
তোমার মূখ্য ধ্বনি
ভাসে শতখানি –
মাতৃত্বের বাংলায়,
স্বদেশে সুখ-প্রেম
স্নেহ-মমতায় ।।
সর্বকালের জন্য তুমি
উদয় হলো
রক্ত সবিতা ,
তোমার কৃতিত্ব যেন
কবি’র কবিতায় ।
হৃদে মন্ত্রে তুমি –
পাখির কলতানে
তুমি জাতির পিতা,
কালের খেয়া
তুমি সতীত্ব সীতা।।

৪. মহামারি করোনা
মহামারি করোনা তোমায় বলছি –
আর কতদিন মানুষের লাঞ্ছিত দেখবে ?
সমস্ত সুখ আমার পথচলা মাঝখানে
বিপদাত্মক সূচনা কাটাতে হয় এভাবে।।
করোনা আমি তোমায় বলছি –
সতর্কতা দৃষ্টি তাকাতে হয় বারবার,
তবুও ধেয়ে আসে মৃত মানুষের লাশ
সৃষ্টি তুমিও তোমার,নিষিদ্ধ করো পরিহার।।

৫. করোনা’য় বিষাক্ত ছোবল
আমিও চার দেয়ালের ভিতরে
নিস্ক্রিয় গৃহবন্দি জীবন,
মনে হয় কালের সংকট
দক্ষিণের জানালা খুলে দেখি
মুক্তি চাই,মুক্তি চায় মানুষ ।।
খোলা আকাশ তার নিচে প্রকৃতি –
চতুর্দিক বায়ুমন্ডল ঘুরছে ,
করোনাভাইরাস বিভ্রান্তি সৃষ্টি…
দিনমজুর ক্ষুদ্র তাগিদ
কষ্টে মানুষ লড়ছে।
বাজারে অলিগলি মুদির দোকান
আতংকে তাই বন্ধ ;
ক্রেতার খালি ব্যাগ বাসায় ফির মন্দ।
মানবঘাতী করোনা বিষাক্ত ছোবল
রাস্তাঘাট ফাঁকা নিস্তব্ধ গ্রাম-সদর
নিষ্ঠুর মৌনতা বিষণ্ণতায় হারিয়ে –
আমিও ঘরের ভিতর।

৬. মহামারি করোনা
মহামারি করোনা-
মানুষের কষ্ট,
গৃহবন্দী যদিও থাকি…
সময় অবশেষ নষ্ট!
মহামারি তুমি করোনা –
যা হতে ধূলিসাৎ
তাণ্ডব দেখে বিশ্বকাঁদে
কেন তুমি অশুভ উন্মাদ?
মহামারি তুমি করোনা-
অজান্তেই ভাবছিস সিন্দুক ;
ঘৃণ্যকরোনা তুমি…ছি!
পৃথিবী নিন্দুক।

শেয়ার করুন ..

Comments are closed.




© All rights reserved © পাতা প্রকাশ
Developed by : IT incharge